প্রেমের বাংলা কবিতা : ছোঁয়া

     


          

                      ছোঁয়া 

                             -অমিত পাল

আবার তোমার পড়লো মনে, বেলাশেষের সন্ধ্যা লগণে, 

প্রখর তাপে ঝরে পাতা , আজি শূন্য মোর শাঁখ গহীন বনে ৷৷ 

যে কথা নীরবে জমা ছিলো মম অন্তরে, গিয়েছে খুলে শ্রাবণ মেঘের সনে ৷ 

অনুরাগের শীতল বাদল মেখে , আবার এসেছে ফিরে , প্রেমের ফুল ঝরিয়ে দিয়ে ৷ 

তপ্ত তনু আবার উঠুক জেগে, বর্ষার  শীতল ধারা পিয়ে ৷৷ 


সঘন গগনে মেঘমাল্লার গানে, উঠুক বেজে বীণা নতুন ছন্দে তরঙ্গে ৷

কত শতাব্দি উষ্ণ মরু ভেজেনি শীতল ধারার মধুর পরশে ৷৷

যে কথা ছিলো মনের গহীনে লুকানো, দক্ষিনা হাওয়ার বানে , যাক ভেসে গানে ৷

হাতে হাত রেখে প্রিয়ে, চেয়ে রই তব আঁখিপাণে ৷ 

উষ্ণ শ্রাবণে ভিজে যাই পূন্যস্নানে, তোমারই পরশে বাদল মেখে ৷ 

আজি নিজেরে হারায়ে , দিকদিগন্তে শুনি উল্লাস , প্রলয়ের নৃত্যে নটবর নাচে ৷

এ হিয়া সখি তোমারেই , শুধু তোমারেই যাচে ৷৷


প্রেমের কেতকী পেখম মেলিছে, ছুটিছে হাওয়া ঝড়ের মতো রঙ মাখিয়ে ৷ 

পিয়াসী মন সেই রঙে, রাঙুক আবার নতুন করে পূন্যলগণে ৷

নতুন বাদল ধারায় সিক্ত হয়ে, আবার রঙে উঠুক ভরে, হৃদয় তাপিত বনে ৷৷

যে কথা বলিনি, আজি তা উঠুক ভেসে নয়ন সিক্ত স্রোতে ৷ 

মধুর মিলনে পূর্ণ শশী মেঘ সরায়ে, আবার উঠুক জাগি গগনে ৷ 

তোমার প্রাণের পরশ মাখি,উঠুক বেঁচে আমার হৃদয় এ মহা লগনে ৷৷

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ